সোমবার, ২১ Jun ২০২১, ১২:০৮ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
মুন্সীগঞ্জে ফুটবল লীগ টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন দেশকে এগিয়ে নিতে নারী উদ্যোক্তাদের ভূমিকা।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন রোয়াংছড়িতে ২য় পর্যায়ে ঘর পাচ্ছেন ১২০টি গৃহহীন পরিবার।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন কালিগঞ্জে শেখ হাসিনা’র উপহার হিসেবে ২০টি ঘর পেল ভূমিহীন অসহায়রা মুজিব শতবর্ষে একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না-প্রধানমন্ত্রী।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন সোনারগাঁ থানায় ৩ ঘন্টা ০৫ মিনিটে চুরি মামলার আসামী সনাক্ত।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন সাংবাদিকদের পর্যবেক্ষন কার্ড প্রদানে গড়িমসির অভিযোগ।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন “ক্লিন সাতক্ষীরা গ্রিন সাতক্ষীরা।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন মুন্সীগঞ্জে নতুন ঠিকানা পেলো ৩২৫টি পরিবার।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন সোনারগাঁয়ে গৃহহীন ও ভূমিহীনদের মাঝে জমিসহ ঘর হস্তান্তর।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন
নড়াইলের মধুমতি নদীতে সন্তানকে উদ্ধার করতে গিয়ে বাবাও নদীতে নিখোঁজ

নড়াইলের মধুমতি নদীতে সন্তানকে উদ্ধার করতে গিয়ে বাবাও নদীতে নিখোঁজ

 

উজ্জ্বল রায়, নড়াইল জেলা প্রতিনিধিঃ
নড়াইল জেলার কালনাঘাটে সপরিবারে নৌভ্রমণে এসে নির্মাণাধীন সেতুর পিলারের সঙ্গে ধাক্কায় পুলিশ কনস্টেবল বাবা মোহাম্মদ মুসা (২৫) ও চার মাসের ছেলে সন্তান মধুমতি নদীতে নিখোঁজ হয়েছেন। শুক্রবার (২৮ আগস্ট) সন্ধ্যায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনার পর লোহাগড়া ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধারের চেষ্টা করলেও তাদের সন্ধান পায়নি। পুলিশ কনস্টেবল মুসার বাড়ি লোহাগড়া উপজেলার চাঁচই গ্রামে। তিনি ঢাকায় রাজারবাগ পুলিশ লাইনে কর্মরত। সম্প্রতি ছুটিতে বাড়িতে আসেন।
পুলিশসহ বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার বিকেল স্ত্রী, শিশু সন্তানসহ পরিবারের অন্তত আট সদস্যকে নিয়ে কালনাঘাটে মধুমতি নদীতে নৌভ্রমণে আসেন পুলিশ কনস্টেবল মুসা। তাদের বহনকারী ট্রলার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে কালনাঘাটে নির্মাণাধীন সেতুর পিলারে ধাক্কা খায়। এ সময় বাবা মোহাম্মদ মুসার কোল থেকে শিশু সন্তান মধুমতি নদীতে পড়ে যায়। সন্তানকে উদ্ধার করতে মুহূর্তেই বাবা (মুসা) নদীতে ঝাপ দেন। একপর্যায়ে মুসাও নিখোঁজ হন।
লোহাগড়া এসআই মাহফুজ জানান, দুর্ঘটনার পর ফায়ার সার্ভিসসহ স্থানীয় লোকজন তাদের উদ্ধারে তৎপরতা চালিয়েছেন। তবে কাউকে পাওয়া যায়নি। শনিবার আজ থেকে আবার উদ্ধার তৎপরতা শুরু হবে।

Print Friendly, PDF & Email

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

Comments are closed.




© All rights reserved © MKProtidin.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com