শনিবার, ০৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৩:১৮ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
দেবহাটায় জমজমাট পূর্ণ ভলিখেলা অনুষ্ঠিত মঙ্গলে অভিযানের পরিবর্তে টিকার পেছনে অর্থ ব্যয় ভাল : বিল গেটস বাহরাইনে বাংলাদেশি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের যাত্রা শুরু  টুঙ্গিপাড়ায় হয়ে গেল নড়াইল জেলা কবি সাহিত্যিকদের বনভোজন নাসায় গবেষণার সুযোগ পেলেন বাংলাদেশি আদিবা সাজেদ অমর একুশে মেলায় চার বইয়ের মোড়ক উন্মোচনে তথ্যমন্ত্রী বিএনপির ছেড়ে দেওয়া ছয় আসনে উপ-নির্বাচনে ২৫ শতাংশের বেশি ভোট পড়েছে বলে দাবি করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সোনারগাঁয়ে স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন ইতালীতে শরীয়তপুর সমিতির রাজনীতিতে আব্দুর রউফ ফকির একটি আলোচিত নাম ভৈরবে ছাত্রী অপহরণ মামলার আসামী গ্রেফতার
পিরোজপুর ইন্দুরকানীতে প্রেমে বাধা দেয়ায় বিষ পানে  স্কুল ছাত্রীর মৃত্যু 

পিরোজপুর ইন্দুরকানীতে প্রেমে বাধা দেয়ায় বিষ পানে  স্কুল ছাত্রীর মৃত্যু 

মোঃ জিয়াউল হক
পিরোজপুর প্রতিনিধিঃ
পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে প্রেমে বাঁধা দেয়ায় বিষ পানের ১০ দিন পর সেই
স্কুল ছাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। সরেজমিনে আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে গিয়ে পরিবার ও স্থানীয়দের কাছথেকে জানা যায়, নিহত স্কুল ছাত্রী ইন্দুরকানী সরকারি সেতারা স্মৃতি মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণির ছাত্রী ছিলেন।
নিহত ছাত্রী উপজেলার চাড়াখালী গ্রামের দিনমজুর রমজান সিকদারের মেয়ে শিরিন আক্তার মিম (১৩)। স্কুল পড়ুয়া শিরিন আক্তার মিম (১৩)’র সাথে পার্শ্ববর্তী সেউতিবাড়ীয়া গ্রামের মোঃ শাহীন কাজীর ছেলে রুজাইন কাজী (১৬) এর সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিলো। রুজাইন (১৬) একটি মুটোফোন কিনে দেন মিমকে। এঘটনা ছেলের মা জানতে পেরে মেয়ের বাড়ীতে গিয়ে মেয়ের কাছ থেকে মোবাইলটি নিয়ে যায়।
পরে এবিষয়টি নিয়ে উভয় পরিবারের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে গত ২ জানুয়ারী স্কুল ছাত্রী অভিমান করে ঘরে থাকা ঘাস নিধনের কীটনাশক পান করে। কীটনাশক পানের বিষয়টি তার পরিবার জানতে পারেনি। এর দুইদিন পর স্কুল ছাত্রী অসুস্থ হয়ে পড়লে ইন্দুরকানী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। তখন স্কুল ছাত্রী কীটনাশক পান করেন তার পরিবারকে জানান ছাত্রী। পরে স্কুল ছাত্রীর অবস্থার অবনতি হলে তারা পিরাজপুর জেলা হাসপাতালে এবং পরবর্তীতে খুলনা মডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা করান।
সেখানে দুইদিন চিকিৎসার পর অর্থসংকটের কারণে বাড়িতে নিয়ে আসেন। বাড়িতে আসার পর আবারও অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে খুলনার একটি প্রাইভেট ক্লিনিকে ভর্তি করানো হয়। রোগীর অবস্থার অবনতি হলে বুধবার তাকে ক্লিনিক থেকে ফেরত দিলে বাড়ি নিয়ে আসেন। ওইদিন গভীর রাতে মারা যান স্কুল ছাত্রী মিম।
Print Friendly, PDF & Email

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

Comments are closed.




© All rights reserved © MKProtidin.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com