সোমবার, ২১ Jun ২০২১, ১২:২৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
মুন্সীগঞ্জে ফুটবল লীগ টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন দেশকে এগিয়ে নিতে নারী উদ্যোক্তাদের ভূমিকা।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন রোয়াংছড়িতে ২য় পর্যায়ে ঘর পাচ্ছেন ১২০টি গৃহহীন পরিবার।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন কালিগঞ্জে শেখ হাসিনা’র উপহার হিসেবে ২০টি ঘর পেল ভূমিহীন অসহায়রা মুজিব শতবর্ষে একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না-প্রধানমন্ত্রী।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন সোনারগাঁ থানায় ৩ ঘন্টা ০৫ মিনিটে চুরি মামলার আসামী সনাক্ত।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন সাংবাদিকদের পর্যবেক্ষন কার্ড প্রদানে গড়িমসির অভিযোগ।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন “ক্লিন সাতক্ষীরা গ্রিন সাতক্ষীরা।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন মুন্সীগঞ্জে নতুন ঠিকানা পেলো ৩২৫টি পরিবার।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন সোনারগাঁয়ে গৃহহীন ও ভূমিহীনদের মাঝে জমিসহ ঘর হস্তান্তর।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন
হতদরিদ্র মানুষকে কাজের মাধ্যমে স্বাবলম্বী ও প্রতিষ্ঠিত হতে হবে ……………ইউএনও মোজাম্মেল হক রাসেল

হতদরিদ্র মানুষকে কাজের মাধ্যমে স্বাবলম্বী ও প্রতিষ্ঠিত হতে হবে ……………ইউএনও মোজাম্মেল হক রাসেল

 

হাফিজুর রহমান শিমুলঃ

জাতিসংঘ উন্নয়ন কর্মসূচি ইউএনডিপি এর আওতায় স্বপ্ন প্রকল্পের মাধ্যমে বে-সরকারী উন্নয়ন সংস্থা সুশীলন এর বাস্তবায়নে কোভিট-১৯ মহামারীতে ভোগ্যপণ্য ও স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী সহায়তা বিতরণ করা হয়েছে। ১৮ আগস্ট মঙ্গলবার সকাল ১০ টায় কালিগঞ্জ উপজেলার তারালী ইউনিয়ন ও কুশুলিয়া ইউনিয়নে পৃথকভাবে স্বপ্ন প্রকল্পের স্বামী পরিত্যাক্তা ও বিধবা নারীদের মাঝে ভোগ্যপণ্য ও স্বাস্থ্যসুরক্ষা সামগ্রী সহায়তা বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন কালিগঞ্জ উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মোঃ মোজাম্মেল হক রাসেল। তিনি বক্তব্যে বলেন আমাদের হাত পরিষ্কার করে খাদ্যদ্রব্য গ্রহণ করলে শতকরা ৮০ ভাগ রোগ থেকে মুক্ত হওয়া সম্ভব। মেনে নিয়ে সচেতনতার সাথে মানিয়ে চলতে হবে। দরিদ্র মানুষকে কাজের মাধ্যমে স্বাবলম্বী ও প্রতিষ্ঠিত হতে হবে, হাত পেতে অনুদান গ্রহণ করা ভালো নয়। আমাদের নীতি নৈতিকতার পরিবর্তন আনতে হবে। তিনি ইউএনডিপির এই প্রোজেক্টের ভবিষ্যতে পরিবর্তন আনার কথা বলে আরো বলেন আমাদের সন্তানদের সাধারণ শিক্ষায় শিক্ষিত নয়, কারিগরি শিক্ষা শিক্ষিত করতে হবে, তাহলে তারা আর বেকার থাকবে না। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ইউএনডিপির প্রকল্প ব্যবস্থাপক কাজল চ্যাটার্জি বলেন দরিদ্র মানুষদের করোনাকালীন সময়ে সহায়তার জন্য আমরা কাজ করছি। আগেও আমরা সুশীলনের মাধ্যমে কাজ করেছি ভবিষ্যতেও করব। তবে এভাবে সব সময় সাহায্যের আশা না করে আপনাদের প্রত্যেককেই কর্মসংস্থানের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠিত হতে হবে। তিনি বলেন জীবনে পরিবর্তন আনতে নিজেদের সদিচ্ছাই যথেষ্ট। তিনি কালিগঞ্জ উপজেলার কুশুলিয়া একটি গার্মেন্টস ফ্যাক্টরি স্থাপনের কথা বলেন। ইতিমধ্যে গার্মেন্টসের জন্য ৯০ ভাগ কাজ সম্পন্ন হয়েছে। এখানে গার্মেন্টসটি হলে এলাকার হত দরিদ্র নারীরা কাজ পাবে, বিশেষ করে দর্জি বিষয়ে যাদের অভিজ্ঞতা আছে এমন ৪০ জন নারী চাকরি করতে পারবে। বিশ্বস্থ উন্নয়ন সংস্থা সুশীলন এলাকার গার্মেন্টস এর জন্য জমিসহ সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছে। বিতরন অনুষ্ঠানে তারালি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এনামুল হোসেন ছোট এর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ইউএনডিপি জাতীয় প্রকল্প ব্যবস্থাপক কাজল চ্যাটার্জী, সুশীলনের সু-যোগ্য উপ পরিচালক মোস্তফা আখতারুজ্জামান পল্টু, কালিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি শেখ সাইফুল বারী সফু, সহ সসভাপতি শেখ আনোয়ার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক সুকুমার দাস বাচ্চু, শ্যামনগর প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি শিক্ষক গোলাম মোস্তফা।এছাড়াও ইউনিয়ন পরিষদের অন্যান্য সদস্য স্থানীয় ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। বেলা সাড়ে ১১ টায় কালিগঞ্জ উপজেলার কুশলিয়া ইউনিয়ন পরিষদে স্বপ্ন প্রকল্পের মাধ্যমে সুশীলনের বাস্তবায়নে ভোগ্যপণ্য ও স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ করা হয়। ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ এবাদুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ইউএনডিপি জাতীয় প্রকল্প ব্যবস্থাপক কাজল চ্যাটার্জী। বিশেষ অতিথি ছিলেন কালিগঞ্জ থানা অফিসার থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ দেলোয়ার হুসেন। বক্তব্য রাখেন সুশীলনের উপ-পরিচালক মোস্তফা আক্তারুজ্জামান পল্টু, কালিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি শেখ সাইফুল বারি সফু। এসময় অন্যান্য সাংবাদিকবৃন্দসহ ইউপি সদস্য গোলাম মোস্তফা, আব্দুল গফফার, মনিরুল ইসলাম পুটু, সুশীলন এরিয়া ম্যানেজার রিয়াজুল ইসলাম, এরিয়া ব্যবস্থাপক আবু জাফর সিদ্দিকী মিলন, স্বপ্ন প্রকল্প কর্মকর্তা শেখ ফিরোজ উদ্দিন, ম্যানেজার নূর মোহাম্মদ আবু রায়হান প্রমূখ। মহামারী করোনা ভাইরাস এর ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হতদরিদ্র পরিবার খাদ্য সংকট তীব্র আকার ধারণ করায় জাতিসংঘ উন্নয়ন কর্মসূচি সাতক্ষীরা জেলার শ্যামনগর, কালিগঞ্জ আশাশুনি, দেবহাটা ও তালা উপজেলার ৫২ টি ইউনিয়নে ক্ষতিগ্রস্ত ৩ হাজার ৭শ ৯৬ টি নারী প্রধান পরিবারের মাঝে সিটি ব্যাংক এন এ আর্থিক সহায়তায় ভোগ্যপণ্য ও স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী সহায়তা হিসেবে প্রদান করা হয়। সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসন, স্থানীয় সরকার বিভাগ এর বাস্তবায়নে ও সুশীলন এর তত্ত্বাবধানে খাদ্য সহায়তা প্রদান করা হচ্ছে। ভোগ্য পণ্যের প্যাকেজটিতে পরিবার প্রতি এগারোটি আইটেম পাচ্ছেন। যেমন চাউল ১২ কেজি, আটা ৬ কেজি, মুসুর ডাল ৩ কেজি, সোয়াবিন তেল ২ লিটার, চিনি ১ কেজি, লবন ১ কেজি, সুজি ৫শ গ্রাম, ছয় পিচ সাবান, ১পিচ হ্যান্ড স্যানিটাইজার, মাক্স ৭ পিচ প্রদান করা হয়। আগামী ১৯ আগস্ট ও ২০ আগস্ট পাঁচটি উপজেলার ইউনিয়ন পরিষদে খাদ্য সুরক্ষা সামগ্রী প্রদান করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

Comments are closed.




© All rights reserved © MKProtidin.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com