সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:৪৮ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
ভারতের বিচার বিভাগে, ৫০,ভাগ, মহিলা বিচারপতি রাখতে জোর দাবি ভারতের সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি শ্রী এন এ রমনা তানোরে কৃষি কলেজ খুলে অধ্যক্ষ ইসাহাক আলী মৃধার কোটি টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ  সাতক্ষীরার কালিগঞ্জ উপজেলায় ২৮ সেপ্টেম্বর গণটিকা প্রস্তুতি সম্পন্ন রংপুরে সাংবাদিক নেতা আফরোজা সরকারসহ ৫ জনের ওপর হামলার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ রাসিক মেয়রের সাথে রুয়েট কর্মচারীদের সৌজন্য সাক্ষাৎ রাণীনগরে ইয়াবাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক প্রেমের নৃশংসতা মানবতার জননী যেসব তথ্য সত্য হলেও লেখা যাবে না, ছাপানো যাবে না রাজশাহীর বারোরাস্তা মোড় হতে জলিলের মোড় পর্যন্ত সেকেন্ডারি ড্রেনের কাজের উদ্বোধন
রাজশাহীতে চাকরির নামে প্রতারণা ভাই-বোন আটক।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন

রাজশাহীতে চাকরির নামে প্রতারণা ভাই-বোন আটক।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন

লিয়াকাতঃ চাকরি দেয়ার নামে চাকরি প্রার্থীদের কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগে ভাই-বোন গ্রেফতার।
 ঘটনার সাথে জড়িতদের শাহমখদুম থানা পুলিশের একটি টিম নগরীর সপুরা এলাকায় অবস্থিত রাজশাহী কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র(টিটিসি) থেকে আটক করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলো সুরাইয়া সুলতানা(২৯) ও তার ভাই মোঃ জাহাঙ্গীর আলম(৩৯)।
প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, রাজশাহী টিটিসির প্রশিক্ষণ কক্ষ ভাড়া নিয়ে ভূয়া প্রশিক্ষণ দিয়ে চাকরি প্রত্যাশী শিক্ষিত বেকার সহজ সরল যুবকদের চাকরি দেওয়ার নাম করে ভূয়া নিয়োগপত্র দিয়ে প্রতারক চক্র লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। এই প্রতারক চক্রের মূল হোতা সুরাইয়া সুলতানা ও তার ভাই মোঃ জাহাঙ্গীর আলম ছাড়াও আরও পলাতক দুই-তিনজন প্রতারক এই প্রতারণার কাজে জড়িত। তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।
ঘটনা সূত্রে জানা যায়, মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান(২২)সহ ৭ জন চাকরি প্রত্যাশী বেকার যুবকদের সাথে সুরাইয়া সুলতানার বিভিন্নভাবে পরিচয় হয়। পরিচয়ের সূত্র ধরে সুরাইয়া সুলতানা তাদেরকে বিভিন্ন কোম্পানিতে উচ্চ বেতনের চাকরি দেওয়ার প্রলোভন দেয়। এক পর্যায়ে মোঃ মোস্তাফিজুর রহমানদেরকে জানায় যে, তাদের বিভিন্ন কোম্পানিতে চাকরি হয়েছে এমকি নিয়োগ পত্রও প্রদান করে। পরবর্তীতে সুরাইয়া সুলতানা ও তার ভাই মোঃ জাহাঙ্গীর আলম চাকরি প্রত্যাশীদেরকে একত্রে করে বলে রাজশাহী কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র(টিটিসি)তে তাদের প্রশিক্ষণ নিতে হবে। সেই মোতাবেক তারা গত ১৯ মে ২০২১ তারিখ টিটিসির কোইকা ডরমেটরিতে উঠে এবং প্রশিক্ষণ নিতে থাকে। উক্ত প্রশিক্ষণ কোর্সে সুরাইয়া সুলতানার ভাই মোঃ জাহাঙ্গীর আলম প্রশিক্ষক হিসেবে প্রশিক্ষণ দিত। সুরাইয়া সুলতানা তাদেরকে জানায় যে প্রশিক্ষণ শেষে চাকুরিতে যোগদান করতে হলে প্রত্যেককে মোটা অংকের টাকা দিতে হবে। সেই মোতাবেক তারা চাকরি প্রত্যাশী ০৭ জন ১৯ মে হতে ২৪ মে বিভিন্ন তারিখে সুরাইয়া সুলতানাকে ১২,৫০,০০০ টাকা প্রদান করে।
প্রশিক্ষণ চলাকালীন সময়ে চাকরির বিষয়ে তাদের সন্দেহ হয়। পরবর্তীতে তারা হেতেম খাঁ এলাকায় অবস্থিত নেসকো অফিসে গিয়ে তাদের নিয়োগপত্র যাচাই করে। নেসকো কোম্পানি তাদেরকে জানায় যে, এগুলো তাদের অফিসের কোনো নিয়োগপত্র নয়।
চাকরির প্রতারণা ও অর্থ আত্মসাৎ এর বিষয়টি বুঝতে পেরে তারা আজ ২৫ মে শাহমখদুম থানায় সুরাইয়া সুলতানা ও তার ভাই মোঃ জাহাঙ্গীর আলমসহ আরও দুই তিন জন ব্যক্তির নামে মামলা রুজু করে।
উক্ত অভিযোগের প্রেক্ষিতে শাহমখদুম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল ইসলাম সরকার এর নির্দেশে এসআই মোঃ জুয়েল রানা টিটিসি থেকে সুরাইয়া সুলতানা ও তার ভাই মোঃ জাহাঙ্গীর আলমকে আটক করে। আটককৃতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণকরা হয়েছে।
Print Friendly, PDF & Email

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

Comments are closed.




© All rights reserved © MKProtidin.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com