বৃহস্পতিবার, ০৭ Jul ২০২২, ০৫:০১ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
কালিগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাধারণ সভা উৎসব মুখর পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে সমুদ্রপথে হজ্জ্বযাত্রাঃ- পর্ব-২।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন অনিয়মিত হয়ে গেলে ফিরে আসা কঠিন,কিন্তু অসম্ভব না পিরোজপুর বেকুটিয়া এলাকায় ৮ম বাংলাদেশ-চীন মৈত্রী সেতু উদ্বোধনের আগেই বিদ্যুতের তামার তার চুরি খুলনার পাইকগাছায় আনসার ও ভিডিপির মাসব্যাপি বৃক্ষরোপন কর্মসূচি পিরোজপুরে ৬ জন সরকারী কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের শুদ্ধাচার পুরস্কারের চেক তুলে দেন জেলা প্রশাসন মোহাম্মদ জাহেদুর রহমান আশাশুনি পল্লী সমাজ পুনঃ গঠন গোপালপুরে কলা পাড়তে গিয়ে বিদ্যুৎপৃষ্টে যুবক নিহত।।মানুষের কল্যাণে প্রতিদিন কালিগঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ আহমদ আলীর মৃত্যু। রাষ্ট্রীয় মর্যাদা দাফন দেবহাটার ভাতশালা সম্মিলনী উচ্চ বিদ্যালয়ের নব-নির্মিত ৪তলা ভবনের উদ্বোধন করলেন ডা: রুহুল হক এমপি”
জবান লাগাম দেয়া

জবান লাগাম দেয়া

 

ষোড়শ ও সপ্তাদশ শতকে ইংল্যান্ড, স্কটল্যান্ড এবং ওয়েলস্ এ প্রচলিত শাস্তিরীতি.. যারা ক্রমাগত ঝগড়াঝাঁটি, বকাঝকা করতো বা করতেই থাকতো তথা জবানের কোন লাগাম ছিলোনা তাদের মুখের রাস টেনে ধরতেই ঘোড়ার লাগামের ন্যায় এই সরঞ্জাম ব্যবহারের চল ছিলো। তাতে মুখ ঢেকে রাখার জন্য লাগামের ন্যায় হেডষ্টল ও থাকতো। যে সমস্ত মহিলারা অপ্রীতিকর, পরচর্চা, বকাঝকা, ঝগড়াঝাঁটি, তিরস্কার কিংবা আগ্রাসী আচরন করতো তাদের এই লাগাম পরিয়ে এলাকা ঘোরানো হতো। স্থানীয় প্রবিণেরা শালিসি বৈঠকে নাকি এমন শাস্তি আরোপ করতো। একে গসিপের লাগাম, ব্র্যাঙ্কের লাগাম বা ব্র্যাঙ্কও বলা হত। অভাগা স্বামীদেরকেই অভিযুক্তের রাস টেনে পাড়া ঘোরানোর গুরুদায়িত্ব পালন করতে হতো। জার্মানিতে নাকি এর সঙ্গে ঘন্টাও ঝোলানোরও রীতি ছিলো…!

সে কালেই বোধহয়, “The taming of the shrew” বইটিও রচনা হয়েছিলো।

পুনশ্চ: বাঙ্গালী ধৈর্যশীল যুগে যুগে,, সে কালেও… একালেও। বোধকরি সেকারনেই রেট অফ সেপারেশন এখনও বিশ্বে সর্বনিস্ন,, স্যালুট টু বাঙ্গালী ♥♥

*** সতর্কীকরণ : এই পোষ্ট কাউকে দেখিয়ে ঝুঁকি নেয়া নিষেধ।
লেখকঃ বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমির আইন প্রশিক্ষক হাসান হাফিজুর রহমান।

Print Friendly, PDF & Email

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

Comments are closed.




© All rights reserved © MKProtidin.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com